Monday, 17 May 2021 10:43

নবীগঞ্জে ঈদের জামাত সরকারের নির্দেশ উপেক্ষিত মানুষের মাঝে মিস্ত্র প্রতিক্রিয়া

✍ নিজেস্ব প্রতিবেদকঃ

মহামারি করোনা পরিস্থিতির কারনে সরকার সারা দেশে পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজ মসজিদে জামাত পড়ার নিদের্শনা জারি করেন। এর প্রেক্ষিতে উপজেলা প্রশাসন বিভিন্ন প্রচার প্রচারনা কাে এলাকায় মাইকিং করেন। উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ঈদগাহ এর পরিবর্তে মসজিদে মসজিদে পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাত সরকারের নিদের্শনা অনুযায়ী অনুষ্টিত হয়। কিন্তু নবীগঞ্জ পৌর শহরের গুরুত্বপুর্ণ দু’একটি স্থানসহ বিভিন্ন স্থানে ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্টিত হওয়ায় জনমনে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। ফলে সরকারের নিদের্শনাও উপেক্ষিত হয়েছে। বিশেষ করে শহরের চরগাওঁ গ্রামে বর্তমান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, পৌরসভার মেয়র, সাবেক এমপি, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক, সদর ইউপি চেয়ারম্যানসহ গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বশীল নেতৃবৃন্দ থাকার পরও সরকারী নিদের্শনা অমান্য করে ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্টিত হওয়ায় সাধারন মানুষের মাঝে এই প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়। এছাড়া শহরের প্রাণকেন্দ্রে ইব্রাহিম মসজিদ সংলগ্ন ঈদগাহ মাঠেও ঈদের জামাত অনুষ্টিত হয়। এতে অনেক স্থানে ঈদগাহের পরিবর্তে মসজিদে ঈদের জামাত আদায় করতে গিয়ে নানা প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হয়েছে ঈদগাহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষদের। শহরের ওসমানী রোডস্থ নবীগঞ্জ দারুল উলুম মাদ্রাসা সংলগ্ন শাহী ঈদগাহ মাঠের পরিবর্তে মসজিদে দু’টি ঈদের জামাত এর আয়োজন করেন ওই ঈদগাহ কর্তৃপক্ষ। কিন্তু ধর্মপ্রাণ মুসল্লিগণ আশেপাশে ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্টিত হচ্ছে, সরকারের দায়িত্বশীল ব্যক্তিবর্গ কোন ব্যবস্থা গ্রহন করছেন না। তাহলে তারা ঈদের জামাত ঈদগাহে পড়লে আপত্তি কোথায় ? এমন প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয়েছে ওই ঈদগাহ সংশ্লিষ্ট কমিটির নেতৃবৃন্দদের। অনেকের মতে যাদের দ্বারা সরকারের নিদের্শনা উপেক্ষিত। তাদের ব্যাপারে প্রশাসনের নীরবতা দুঃখ জনক। এ বিষয়ে সরকারের সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টি দেয়া প্রয়োজন বলে দাবী করেছেন অনেকেই।

Last modified on Monday, 17 May 2021 10:45
Login to post comments
  1. LATEST NEWS
  2. Trending
  3. Most Popular